Sharing is caring!

 

পিএইচডি অভিসন্দর্ভে ৯৮ ভাগ নকল করার অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওষুধপ্রযুক্তি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবুল কালাম লুৎফুল কবীরকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ও শিক্ষা কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ছিলেন।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় এই সিদ্ধান্ত অনুমোদিত হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে সভা অনুষ্ঠিত হয়।

পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ দপ্তর থেকে সংবাদ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে সভার সিদ্ধান্ত জানানো হয়। শিক্ষক আবুল কালাম লুৎফুর কবীরকে অব্যাহতির পাশাপাশি অভিযোগটি তদন্তে একটি কমিটিও করা হয়েছে।

একজন সিন্ডিকেট সদস্য প্রথম আলোকে বলেন, সিন্ডিকেট সভায় ২১ জানুয়ারি প্রথম আলো অনলাইনে ‘ঢাবি শিক্ষকের পিএইচডি গবেষণার ৯৮% নকল’ শিরোনামে প্রকাশিত খবরটি বিবেচনায় নিয়ে শিক্ষক আবুল কালাম লুৎফুর কবীরকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। সভায় সিন্ডিকেটের কয়েকজন সদস্য সংবাদটির জন্য প্রথম আলোর প্রশংসাও করেন।

৬৭ জন শিক্ষার্থীকে আজীবন বহিষ্কার
এদিকে প্রশ্নপত্র ফাঁস ও জালিয়াতির জন্য ৬৩ জন এবং অস্ত্র ও মাদকের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতার দায়ে ৪ জনকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আজীবন বহিষ্কার করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ডের সুপারিশের ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
এ ছাড়া ছিনতাইয়ের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ১৩ জনকে এবং ডিজিটাল জালিয়াতি ও অবৈধ পন্থায় ভর্তির অভিযোগে নয়জনকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। কেন স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হবে না, তা জানতে চেয়ে তাঁদের কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

এর বাইরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় গ্রন্থাগার ও টিএসসিতে গত বছরের ২৫ অক্টোবর সাংবাদিকদের মারধরের ঘটনায় ২ শিক্ষার্থীকে ৬ মাসের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে। এ ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরীণ পরীক্ষায় বিভিন্ন সময়ে অসদুপায় অবলম্বনের জন্য ৩০ শিক্ষার্থীকে বিভিন্ন মেয়াদে শাস্তি দেওয়া হয়েছে।

source: prothomalo

Sharing is caring!

https://i2.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2020/01/images.png?fit=200%2C252&ssl=1?v=1580229379https://i1.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2020/01/images.png?resize=150%2C150&ssl=1?v=1580229379culiveক্রাইম এন্ড "ল"শিক্ষাdu doctor  পিএইচডি অভিসন্দর্ভে ৯৮ ভাগ নকল করার অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওষুধপ্রযুক্তি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবুল কালাম লুৎফুল কবীরকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ও শিক্ষা কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ছিলেন। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় এই সিদ্ধান্ত অনুমোদিত হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে সভা অনুষ্ঠিত হয়। পরে...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University