এসেছিলাম পাহাড় ঘেরা, পাখপাখালিতে
ভরা, রবীন্দ্রনাথের সেই ছোট নদীর মত,
পাশ দিয়ে বয়ে চলা নদীর পাশের এক গ্রাম
থেকে। যেখানে সারা বছর সবুজ শ্যামল আর
পাখির কলকাকলিতে মুখরিত থাকত। ভোর
বেলা পাখির ডাক কিংবা বন মোরগের
ডাকে ঘুম ভাঙ্গত। ভোর বেলা উঠেই বাবার
বেগুন ক্ষেত থেকে হরিণ,কিংবা বুলবুলি
তারানো,নয়তো ভোর বেলা পাকা ধানের
মাঠ থেকে সেই বাবুই পাখির ঝাঁক
তারানো অথাবা শীতের রাত জেগে
ধানের জমি পাহারা দেওয়া যাতে
পাহারের বন্য শুকর এসে নষ্ট করতে না
পারে। কিংবা সজারুর, কাঠ বিড়ালির হাত
থেকে ফসল রক্ষা করা।
:
প্রকৃতির এসব উপাদানের সাথে খেলা
করতে করতে কখন জানি প্রকৃতিকে
ভালবেসে ফেলেছি নিজেও বুঝতে পারি
নি…!বুঝতে পারি তখন, যখন গ্রাম ছেড়ে
শহরে আসি। শহরের ইট পাথরের
বিল্ডিংগুলো বড্ড অস্বস্তিকর লাগছিল।
এক টি বিষয় অনুধাবন করতে পারলাম, শহরে
এসে মানুষ প্রাণ নিয়ে বেঁচে থাকেলেও মন
নিয়ে বেঁচে থাকতে পারে না।
:
এই অবস্থার অনেকটাই উন্নতি হয়েছিল তখন,
যখন ভর্তি হয়েছিলাম প্রাণপ্রিয় সেই
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে। কি নেই
সেখানে! পাহাড় পর্বত, সবুজ শ্যামল
গাছপালা। জীব যন্তু আর পাখপাখালির
কথা বলবেন? পুরা ক্যাম্পাস যেন এক টা
সাফারি পার্ক! বন মোরগের ডাক, কিংবা
মায়া হরিণ, অথবা অজগর সাপ কিংবা
রংবেরঙের পাখি। কি বিশ্বাস হয় না?
তাহলে আপনি এক টু সময় নিয়ে ঘুরে যান
আমাদের সেই ২১০০ একরের অভয়ারণ্যে,
হাঁটতে হাঁটতে হয়ত হঠাৎ সামনে পরবে
বিখ্যাত সেই মায়া হরিণ, বা সাপের
রাজা অজগর! কি অজগরের নাম শুনে ভয়
পেলেন? না ভয়ের কোন কারণ নেই! এরা
আপনার মত মেহমান দের কিছু করে না।
বরং এরা আপাকে স্বাগত জানাতে
এসেছে। যুগ যুগ ধরে এরা মিলেমিশে ছাত্র-
ছাত্রীদের সাথে বসবাস করে আসছে।
আরো শুনতে পাবেন
নানা জাতের পাখির কিচিরমিচির
ডাক,বানর আর কাঠবিড়ালির লাফালাফি
আপনাকে মুগ্ধকরবেই। ক্যাম্পাসে আসা
যাওয়া কিন্তু শাটলেই করবেন, দুই পাশের
সবুজ মাঠ চিরে ঝক ঝকাঝক করে চলবে
শামসুর রাহমানের সেই ট্রেন কবিতার মত।
ও হ্যাঁ সম্ভব হলে এক রাত কাটাবেন, রাতের
কিংবা সকালের প্রকৃতির অপরুপ সৌন্দর্য
উপভোগ করতে ভুলবেন না।
:
প্রাণের বিশ্ববিদ্যালয়ের আজ জন্মদিন।
শত বাধা অতিক্রম করে সগৌরবে এগিয়ে
চলছে চির যৌবনা শিক্ষাঙ্গনটি ।
প্রিয়তমা; জন্মদিনে তোমাকে জানাই
প্রাণঢালা শুভেচ্ছা;

ভালবাসার♥ চ.বি.♥
মো:তৈয়ব আলী।
ব্যবস্থাপনা বিভাগ
18/11/2017

https://i1.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2018/10/চবির-ভর্তি-পরীক্ষায়-ক্যাম্পাসে-কড়া-নিরাপত্তা.jpg?fit=700%2C410&ssl=1https://i0.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2018/10/চবির-ভর্তি-পরীক্ষায়-ক্যাম্পাসে-কড়া-নিরাপত্তা.jpg?resize=150%2C150&ssl=1culiveআদার্সট্যুরচ.বিএসেছিলাম পাহাড় ঘেরা, পাখপাখালিতে ভরা, রবীন্দ্রনাথের সেই ছোট নদীর মত, পাশ দিয়ে বয়ে চলা নদীর পাশের এক গ্রাম থেকে। যেখানে সারা বছর সবুজ শ্যামল আর পাখির কলকাকলিতে মুখরিত থাকত। ভোর বেলা পাখির ডাক কিংবা বন মোরগের ডাকে ঘুম ভাঙ্গত। ভোর বেলা উঠেই বাবার বেগুন ক্ষেত থেকে হরিণ,কিংবা বুলবুলি তারানো,নয়তো ভোর বেলা পাকা ধানের মাঠ থেকে সেই বাবুই পাখির...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University