Chittagong university shuttle pictureসারাবিশ্বে একমাত্র চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়েরয়েছে শাটল ট্রেন। শিক্ষার্থীদের মাঝে একটি মুখরোচক কথা প্রচলিত আছে, ‘চবিতে পড়বেন আর শাটলে চড়বেন না তা কি হয়!’
এই শাটল সার্ভিস। ২২কিলোমিটার দূরত্বের ক্যাম্পাসে পৌছাতে শাটলে সময় যায় ঘন্টার উপরে। তবু শাটলে বিরক্ত হয়েছেন এমটি শোনা যায়নি কস্মিনকালেও।
প্রেমিক যুগলের কাছে এই ঘন্টা যেন চরম চাওয়ার, পরম পাওয়া। মান অভিমান আর রোমাঞ্চিত হওয়ার এক অনন্য নাম শাটল। শাটলে আসি শাটলে যাই শাটলের সাথেই মিশে গেছি এমনটি মন্তব্য প্রেমিক যুগল তরঙ্গ, মেঘলার।
দেশের রাজনীতি কোথায় যাচ্ছে? গণতন্ত্র এগিয়ে না পিছিয়ে। ক্যাম্পাসে কোন সুন্দরী মেয়ের প্রেমে পড়ার গল্প। ছ্যাঁকা খেয়ে নতুন কোন সম্ভাবনার সৃষ্টি হল এমন সব বিষয় নিয়ে মেতে থাকে শাটলের আড্ডা।
কার্ড খেলায় ট্টাম আর ওভার ট্রামে ব্যস্ত শিক্ষার্থীদের কাছে শাটল যেন সড়াই খানা।
এই শাটলকে ঘিরে কবিদের কবিতাও বাদ পড়েনি। তাই আবেগি কবিরা তাদের কবিতার ঝুঁড়ি ছড়িয়ে দেন শাটলের গায়ে। মজার মজার এসব কবিতা পঙতি মিলে যায় জীবন দর্শনের সাথে। আবার কখনও বা হেঁসে গড়াগড়ি খেতে হয়। ছ্যাঁকা খাইছে গোলাম রসুল ভাই সুন্দরীদের রেহাই নাই।
এই শাটলের প্রতিটি বগিগুলোর রয়েছে অলাদা নাম। অর্থহীন, অর্থপূর্ণ এই নাম গুলো বড় বেখাপ্পা মনে হয়। এই যেমন- দোস্ত, অলওয়েজ, খাইট্টাখাঁ, কর্কপিট, সিক্সটি নাইন, একাকার, ফাইট ক্লাব, সিএফসি, উল্কা, এপিটাফ আরো কত বাহারি নাম।
শাটলের প্রতিটি বগিকে ঘিরে রয়েছে আলাদা শিল্পী ঘোষ্ঠী। তাদের কণ্ঠে বাজতে থাকে বাংলা, হিন্দি, প্যারোডি সহ সকল প্রকৃতির গান। সব গানেই যেন তাদের দক্ষতার শেষ নেই। এরই ধারাই শাটল শিল্পীরা গেয়ে থাকেন।
প্রতিদিন আট বার শাটল আসে, ৮ বার শাটল যায়। যাতায়াত করে প্রায় ১০ হাজার শিক্ষার্থী।
প্রতিদিন শাটল আসে শাটল যায়। সঙ্গে করে ফেরি করে এক ঝাঁক স্বপ্নের পোনা। সুখ-স্মৃতি হাতড়িয়ে পাওয়া যাবে শাটলের রঙ্গিন ছবি মনের ফ্রেমে গাঁথা। চবির প্রতিটি শিক্ষার্থীর আত্মার সাথে কখন যে মিশে গেছে হয়তো তারা নিজেরাও জানেনা।
নিজের অজান্তেই শাটল ঘিরে নানা মজার স্মৃতি জড়িয়ে যায় দীর্ঘ বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে। যার ফলে শিক্ষা জীবনের সমাপ্তিতে শাটল ছুঁয়ে চোখের জল ফেলতে দেখা যায় অনেক শিক্ষার্থীকে।

Lutfur Rahman Rayhan
Institute of Forestry
Chittagong University.

culiveআন্তর্জাতিকক্যাম্পাস সৌন্দর্যchittagong university,cu,shuttle trainসারাবিশ্বে একমাত্র চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়েরয়েছে শাটল ট্রেন। শিক্ষার্থীদের মাঝে একটি মুখরোচক কথা প্রচলিত আছে, ‘চবিতে পড়বেন আর শাটলে চড়বেন না তা কি হয়!’ এই শাটল সার্ভিস। ২২কিলোমিটার দূরত্বের ক্যাম্পাসে পৌছাতে শাটলে সময় যায় ঘন্টার উপরে। তবু শাটলে বিরক্ত হয়েছেন এমটি শোনা যায়নি কস্মিনকালেও। প্রেমিক যুগলের কাছে এই ঘন্টা যেন চরম চাওয়ার, পরম...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University