মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, সজীব ওয়াজেদ জয় ও সায়মা ওয়াজেদ পুতুল নামের দুটি সন্তান আপনার চোখকে শীতল করছে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকরা আপনারই পিতা আমাদের বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা করে। বিদেশে থাকার কারণে আল্লাহ আপনাদের বাঁচিয়ে রেখেছিল জাতির কল্যাণে।

আজ আপনি দেশের প্রধানমন্ত্রী। আপনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ বিশ্বের দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে। একের পর এক অর্জনে দেশের মুকুটে যুক্ত হচ্ছে নতুন পালক। কিন্তু আপনার কিছু সংখ্যক মন্ত্রী-এমপির জন্যে সে সব অর্জন আজ ভেস্তে যাচ্ছে।

২৯ জুলাই-২০১৮ শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র আবদুল করিম ও একই কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী দিয়া খানম ওরফে মিমকে হত্যা করেছে জাবালে নুর বাস। রক্তাক্ত করেছে সেই কলেজের আরও ১৩ শিক্ষার্থীকে।

এ বিষয়টি নিয়ে যখন সাংবাদিকরা নৌমন্ত্রীকে প্রশ্ন করলেন তখন তিনি মানুষের মৃত্যুর মিছিল দেখেও হায়েনার সুরে হেসে হেসে কথা বলছেন। বাসের এই হত্যাকে বৈধতা দিতে নানা ধরনের আযাযিলি যুক্তি দিয়েছেন।

এই সেই শাহাজান খান যিনি ১৯৭৫ সালে জাসদ করতেন। আর তৎকালীন সময় জাসদই বঙ্গবন্ধুকে জাতির কাছে ভিলেন বানানোর চেষ্টা করে গেছে। সে কথা আমরা ইতিহাস পড়ে জানলেও আপনি সচক্ষে দেখেছেন। নৌমন্ত্রী ‘সড়ক ও পরিবহন মালিক-শ্রমিক’ সংগঠন করে একের পর এক মানুষকে হত্যা করে চলেছেন। মানুষের অকাল মৃত্যুতে আপনার চোখে পানি আসলেও নৌমন্ত্রীর মুখে এসেছে হায়েনার বিষাক্ত হাসি।

যে হাসিতে ভেসে যাচ্ছে আপনার দীর্ঘ সাড়ে ৯ বছরের অর্জন।

দেশে এখন অর্ধকোটি শিক্ষার্থী ডিগ্রি, অনার্স ও মাস্টার্স পর্যায়ে পড়ালেখা করছে কোটা আন্দোলনের মার-প্যাচে তাদেরকে আটকে রাখা হয়েছে। এই বৃহৎ শিক্ষার্থী সমাজ যদি অভিমানে ভিন্ন দিকে মুখ ফেরায় তবে ২০ শতাংশ ভোট হারাবেন এ কথা কি কখনো চিন্তা করে দেখে কেউ?

বর্তমানে দেশে ১১ কোটি ২৪ লাখ ৯৭ হাজার ১২৪ জন শিক্ষার্থী বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়, কলেজ, মেডিকেল, হাইস্কুল ও প্রাইমারি স্কুলে পড়ালেখা করছে। নৌমন্ত্রীর বাসে শিক্ষার্থী হত্যার প্রশ্নের হাসিটি আমাদের এই ১১ কোটি শিক্ষার্থীকে ক্ষত-বিক্ষত করেছে।
আপনার এসব বেকুব মন্ত্রীদের বাদ দিয়ে ভদ্র-মার্জিত মানবতাবাদী কিছু লোককে মন্ত্রী নিয়োগ করুন। নৌমন্ত্রীকে এখনি বহিষ্কার করে শিক্ষার্থীদের পাশে এসে দাঁড়ান। আপনিও মা অতএব যেসব মায়ের সন্তান নিহত হয়েছে তাদেরকে সান্ত্বনা দিন। ভাষাসৈনিক, গবেষক ও কলাম লেখক আব্দুল গাফফার চৌধুরী যেমন বলেছেন আওয়ামী লীগের ৮০ শতাংশ অসৎ এমপির মনোনয়ন বাতিল করা দরকার। তেমনি আমরা চাচ্ছি অসৎদের বহিষ্কার।

তাই চোখ খুলুন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী! চোখ খুলুন। মায়ের দৃষ্টিতে দেখুন-ব্যবস্থা নিন!

লেখক: Faruque Ahmad Arif
প্রাক্তন ছাত্র- ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি।
৩০-০৭-২০১৮ইং

http://culive24.com/wp-content/uploads/2018/07/38003634_1843632889061653_7792774170642743296_n.jpghttp://culive24.com/wp-content/uploads/2018/07/38003634_1843632889061653_7792774170642743296_n-150x150.jpgculiveন্যাশনালমাননীয় প্রধানমন্ত্রী, সজীব ওয়াজেদ জয় ও সায়মা ওয়াজেদ পুতুল নামের দুটি সন্তান আপনার চোখকে শীতল করছে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকরা আপনারই পিতা আমাদের বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা করে। বিদেশে থাকার কারণে আল্লাহ আপনাদের বাঁচিয়ে রেখেছিল জাতির কল্যাণে। আজ আপনি দেশের প্রধানমন্ত্রী। আপনার নেতৃত্বে...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University