আইবিএ এমবিএ এর প্রশ্নপত্রে বেশ কিছু পরিবর্তন এসেছে। এখন দেখা যাচ্ছে, ইংরেজিতে কিছুটা জি আর ই টাইপের প্রশ্ন আসে, তো চলুন, আজকে পরিবর্তন হওয়া এই প্রশ্নের সাথে কিভাবে তাল মেলাবেন, এই নিয়ে একটি complete পোষ্ট দেয়া হচ্ছে।
অনেক বড় পোষ্ট তাই পোষ্ট টি শেয়ার করে টাইমলাইনে রাখুন যেন পরবর্তীতে দেখে নেয়া যায়।
অনেকেই আছেন যারা আমার মত দুর্বল ছাত্র কিন্তু প্রস্তুতি নিতে চাচ্ছেন, কিন্তু ভয় পাচ্ছেন। দেখুন ভাই IBA প্রস্তুতি কিন্তু এমন কিছু না যে খুব মেধাবী না হলে হবে না। তবে হ্যাঁ patience level বেশি হতে হবে। আর সবথেকে জরুরী জিনিস হলো- আপনি যদি সঠিকভাবে না শুরু করেন তাহলে প্রচুর পরিশ্রম করেও আপনি সফল হতে পারবেন না। তাই শুরু করার আগে আপনাকে নিশ্চিত হতে হবে যে- আপনি সঠিকভাবে প্রস্তুতি নিচ্ছেন কিনা। একটি কথা আছে– সফলরা ভিন্ন কাজ করে না, একই কাজ ভিন্নভাবে করে। তাই শুরু করার আগে আপনার প্রয়োজন একটি সঠিক গাইডলাইন। তবে আমি বলছি না যে আপনাকে কারো কাছথেকে শুনেই এটা নিতে হবে। আপনি নিজেও এটা বের করতে পারেন। অনেকেই হয়ত শুনেছেন যে- কেউ কেউ ৪-৫ বার IBA তে পরীক্ষা দিয়েও শেষ পর্যন্ত বাদ পড়তে হয়েছে। তাই যেটুকু প্রস্তুতি নেবেন সঠিকভাবে নিতে হবে।
প্রথমেই Reading habit বাড়াতে হবে
যারা একেবারেই দুর্বল তাদের উচিত, প্রথমেই রিডিং এর প্রতি আগ্রহ বৃদ্ধি করা। এই জিনিসটা কাজে লাগে English, math, analytical , writing সকল ক্ষেত্রে। কারণ প্রশ্নও আসবেই English এ। ফলে ইংলিশ না পারলে কোন কিছুতেই কোনকিছু হবে না। অনেকেই বারবার আমাকে বলেন, যে ভাই পেপার পড়ি কিন্ত বুঝি না। আরে ভাই, কমপক্ষে ৪ থেকে ৫ মাস পড়েন , তারপর বলেন যে কিছু বুঝেন, নাকি বুঝেন না। আমার এখনও মনে আছে, যেদিন প্রথম English newspaper নিয়ে বসেছিলাম, সেদিন ৪ ঘণ্টা ব্যয় করে ছোট একটা লেখা বুঝতে পেরেছিলাম। Believe me, English এ D(এস এস সি তে) গ্রেড পেয়েছিলাম। খুব দুর্বল হলে বেশি কষ্ট করতে হবে, এটাই natural। আপনি কেন ভাবছেন যে- আপানার এত Serious Problem খুব সহজেই দূর হবে। অতএব কষ্ট করবেন, pain খাবেন, এগুলো মাথায় নিয়ে যুদ্ধে নামতে হবে। একবার ভাবুন- জ্বর হলে সহজে সেরে যায়, কিন্ত টায়ফয়েড কি সহজে সারে? ১৫ বা ১৬ বছর স্রেফ মুখস্ত করে পাস করেছেন, pain খেতে হবেই!!! আমার কথাগুলো শুনতে ভাল না লাগলেও আপনাকে এই জিনিসগুলো অবশ্যই ভেবে দেখতে হবে।

কিভাবে পড়বেন ?

এবার আসি কিভাবে পড়বেন। মনে রাখবেন, একটা লেখাতে লেখক সর্বদা একটা কিছু বলতে চান। তাই প্রতিটি ওয়ার্ড আর Sentence এর উদ্দেশ্য বুঝতে হবে। সময় লাগবে , no problem, in the long run, আপনার ভাল হবেই। আপনি একটি Sentence এর অর্থ না বুঝলে কয়েকবার করে পড়ুন। প্রয়োজন হলে শব্দের মিনিং দেখে নিয়ে আবার Sentence টি পড়ুন। কিন্তু একবার চেষ্টা করেই হাল ছেড়ে দেবেন না। পড়ার অভ্যাসটা আপনাকে যেভাবেই হোক গড়ে তুলতে হবে। আমি বলছি- শুধু পড়ার চেষ্টা করে যান, মাসখানেক পড় নিউজপেপারের উদ্ভট ইংলিশ পড়েও এক ধরণের মজা পাবেন।
আমি মূলত যে কথা বলতে চাই তা হল- আমি আপনাকে যদি লাল রঙের ড্রামে চুবাই, আপনি লাল রঙের হবেন। নীল হলে নীল। that means, environment একটা জরুরী বিষয়। এখুন আবার দয়া করে বলতে শুরু করেবেন না যে পরিবেশ support দেয় না। আমি চেষ্টা করি কিন্তু এত সমস্যা থাকলে কিভাবে সম্ভব? ইত্যাদি। তাহলে আমি বলব বোকার স্বর্গ তে আছেন আপনি। যারা ভাল কিছু করবে তারা পরিবেশ নিজের মত করে নেয়। পরিবেশের দোষ দেয় না। website visit করুন, search করে লিসেনিং এর অডিও ফাইল নামান। smartphone আমাদের সবার আছে। কানের মধ্যে রবীন্দ্রসঙ্গীত বা linkin park কে কিছুদিন এর জন্য তালাক দিন। আর অডিও ফাইল গুলো শুনুন। যখন, চারপাশটা English এ পূর্ণ থাকবে আপনি জানবেন না, বুজবেন না, কিন্ত English জানতে থাকবেন।
In sum, don’t care the environment.
আপনি যদি না পারেন, তাহলে তারা আপানকে নিয়ে হাসবে, এই ভয়ে পিছিয়ে গেলে আপনি গেলেন। আর পারবেন না। তাই আবার বলি pain নিন, পরে মজা নিন। আগে পান্তা ভাত খেয়ে পরে দুধভাত খাওয়া যায়, কিন্ত , উল্টা টা একবার ভাবেন………
While learning, you must try to become a foolish one because it will open up the new doors of learning and don’t underestimate trivial things. Think about the place where Diamond comes from.
প্রথমেই পুরো প্লান টাকে এভাবে ভাগ করুন
1.Vocabulary.
2.Grammar.
3.Reading.
4.Writing.
ধরুন আপনি ফোরথ ইয়ার থেকে প্রস্তুতি নিবেন । তাই সেই হিসেবে আপনার হাতে আছে কমপক্ষে ১ বছর, প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে উঠবেন বা চেস্টা করবেন। ওঠেই ধর্মীয় কাজ সেরে পড়তে বসে যান। এতে মন প্রফুল্ল থাকে, মানসিক চাপ থাকে না। এর আরেকটি সুবিধা হলো- আপনি সারা দিনের কাজে আর পিছিয়ে পরবেন না। অনেকে বলেন যে ভাই পড়তে গেলে অন্য কাজ হয় না । রাতে একটু তারাতারি শুয়ে পড়লেই হয় । তাহলে আর সমস্যা হয় না বলে আমি মনে করি । ওঠেই যে কাজ টা করবেন তা হল, আগের দিনের ইংরেজী পত্রিকা নিয়ে বসে পরুন । ১ ঘন্টা সময় নিয়ে পেপার পরবেন । যে যে word গুলো নতুন পাবেন, নোট করে রাখুন। চেস্টা করবেন দুইটা সম্পাদকীয় লেখা পড়তে । এর পর আপনার কাজ হল half hour এর মধ্যে ইংরেজীতে এগুলোর summary লেখা । সময় করে কাউকে দিয়ে দেখিয়ে নেবেন । argument or description এর লেখার জন্য স্পেশাল কোন কিছু করতে হবে না । কেবলমাত্র লেখার সময় মাথায় রাখলেই হবে । এবার Achilice’s mnemonics Vocabulary বই থেকে শব্দ শিখতে বসুন । half hour এর মধ্যে ১০ টা ওয়ার্ড শিখুন । এর সাথে মনে রাখবেন, প্রতিদিন ই আগের ওয়ার্ড গুলো রিভাইস করবেন । দুই ঘন্টা শেষ । পত্রিকার শব্দ গুলো মুখস্ত করবেন না । দিনের অন্য একটা সময়ে চোখ বুলাবেন । কেননা এই শব্দ গুলো বারবার আসবে । প্রতিদিন চোখ বুলালেই হবে । কিন্তু reading practice করতেই হবে । একটু বিশ্রাম নিয়ে গ্রামার নিয়ে বসুন । Cliffs TOEFL(এর একটি বাংলা ভার্শন আমরা বের করেছি) and Barron’s SAT দিয়ে শুরু করুন । এক ঘন্টা পড়ুন, তবে মাথায় রাখুন যে প্রথমে ১ বা ১.৫ মাস সময় নিয়ে Cliffs TOEFL টা শেষ করবেন এরপর ২য় বইটি ধরবেন( SAT কিভাবে পড়বেন, এই নিয়ে বিস্তারিত নিচে দেয়া আছে
SAT
Barron’s sat নিয়ে কথা, বলি আসুন। ২৮/২৭ edition হলেই হবে। বইটাতে একটা diagnostic টেস্ট and ৫/৬ টা মডেল টেস্ট আছে।
প্রতিটি টেস্ট এর নিচের পার্ট পড়তে হবে।
section 2: 1-7,
section 3: 1-20
section 4: 1-29
section 6: 1-5
section 7: 1-18
section 8: 1-6
section 9: 1-16
section 10: 1-14
এছাড়া, math , English এর বিভিন্ন পাট এ অনেক math ও প্রশ্ন দেয়া আছে। এগুলো দেখে নিবেন। এই বইটি আমাকে IBA তে chance পেতে অনেক সাহায্য করেছে। আর একটা কথা মনে রাখবেন , এই বইটার আরও অনেক edition আছে, যেগুলোর প্রশ্ন মোটামোটি এই ২৮/২৭ edition এর মতই। তাই edition নিয়ে বিতর্ক করবেন না। অন্য edition নিয়ে ও কোন সমস্যা নেই ।

TOEFL
আচ্ছা, cliffs TOEFL নিয়ে হয়ত আপনারা হয়ত অনেক সমস্যার মুখোমুখি হচ্ছেন। এখানে আমি সম্পূর্ণ বইয়ের একটি সংক্ষিপ্ত আলোচনা করছি।
প্রথমে বইটি নিয়ে কিছু কথা বলে দিচ্ছি, তা হচ্ছে প্রথমত আপনি বইটি নিয়ে মাথা ব্যাথা করবেন না।
প্রথম অংশঃ
আপনি সরাসরি ৩৯-২৩৭ পেজের গ্রামার টা আগে শেষ করুন। প্রতিটি exercise হাতে কলমে বুঝে বুঝে শেষ করবেন। এগুলোর উত্তর দেয়া আছে ২৩৮-২৬২ পেজে।
তবে অনেকেই প্রশ্ন করে থাকেন কি ভাবে পড়ব? একেবারে ইংরেজি বই তো দাদা। চিন্তা করবেন না, আমি একটি পদ্ধটি দেখাচ্ছি। ধরুন আপনি ৮৪ পেজে আছে। দেখুন দুইটা টেবিল আছে। প্রথম টেবিল টি দেখুন বেশ কিছু শব্দ দেয়া আছে। এগুলো ছড়া বানিয়ে মুখস্ত করে নিন। মুলত দেখবেন এই টেবিলের নিচে বেশ কিছু উদাহরন দেয়া আছে। খেয়াল করুন আপনি যে শব্দ গুলো মুখস্ত করেছেন, সেগুলোর পড়ে to+ verb এর base form ব্যাবহার করা হচ্ছে। তার মানে হল আপনি যে টেবিল টি মুখস্ত করলেন এই শব্দের পর যদি কোন verb আসে, তবে তার base form ব্যাবহার করতে হবে। এবারে কাজ চালিয়ে যান। দেখবেন কাজ হয়ে যাবে।
দ্বিতীয় অংশঃ
এবার ২৬৪-২৭৬ পেজে কিছু problem and confusing word নিয়ে বেশ কিছু জিনিস দেয়া আছে, এগুলো মুখস্ত করে ফেলুন। এবং এদের যে exercise দেয়া আছে সমাধান করে ফেলুন। ২৭৬-২৮৪ পেজের প্রতিটি preposition মুখস্ত করে ফেলতে হবে। প্রশ্ন এখান থেকে কমন আসে। ২৮৪-২৮৯ এর verbal idiom গুলো গিলে ফেলতে হবে। দেখবেন কমন পাবেন। ২৮৯-২৯২ এ যা আছে তা একবার দেখে নেবেন, অনেক সময় কমন আসতে পারে।
এরপর দেখবে mini test 5 and mini test 6 আছে। সমাধান করে ফেলতে হবে। এখান থেকে প্রতি বছর এখান থেকে প্রশ্ন কমন এসছে।
আর এসবের উত্তর দেয়া আছে ২৬৭-২৯৯ পেজে।
তৃতীয় অংশঃ
এবার table of contents এ যান। এবার তোমার কাজ হলো, এখানে দেখবে, ৩১৫ পেজ থেকে শুরু করে ৪৯১ পেজ পর্যন্ত মোট ৬ টি টেস্ট দেয়া আছে। এই টেস্ট গুলোর
প্রতিটি টেস্টে ৩ টি করে সেকশন আছে। সেকশন ১ বাদ দিন, লাগবে না। আপনাকে মুলত পড়তে হবে সেকশন ২ যেখানে ৪০ টি করে প্রশ্ন দেয়া আছে যেগুলো কিনা গ্রামার বেসড, আর সেকশন ৩ যেখানে ৫ টি করে রিডিং প্যাসেজ দেয়া আছে। প্রতিটি টেস্ট এর সেকশন ২ ও ৩ শেষ করেলেই কাজ শেষ। এই প্রশ্ন গুলোর উত্তর দেয়া আছে ৪৯৮ পেজ থেকে শুরু করে বইয়ের শেষ পর্যন্ত। একটু খেয়াল করলেই দেখবেন প্রথমে উত্তর ও এরপর এদের ব্যাখ্যা দেয়া আছে।
এর বাইরে এই বই থেকে আর কিছু পড়তে হবে না।

If you continue in this way, just four months later you will find, আপনার রাইটিং এ একটা মোটামোটি দক্ষতা এসেছে। ১৫০০ এর মত word হাতে চলে এসেছে । গ্রামার টা ও মোটামোটি বুঝতে পারছেন । এটা হল primary level এর শেষ ।
এবার আসি মিড লেভেল এ । আগের মত রিডিং ও রাইটিং টা continue করবেন । তবে আপনার এখন কাজ হল রাইটিং টা কে পালিশ করা । GRE and GMAT থেকে একটু রাইটিং টা practice করুন । খুব বেশি এক্সপার্ট হতে হবে না । জাস্ট প্রেজেন্টেশন এর উপর একটু গুরুত্ব দিন । এই সময় গ্রামার টা the ultimate GMAT grammar and Official GMAT 14th edition থেকে পড়ুন । এভাবে আরো তিন মাস চলুক । আর শব্দ শেখার সময় টা ব্যয় করুন Barrons SAT থেকে word based sentence completion practice করে । এটা সলভ করলে দেখবেন অনেক নতুন শব্দ আসছে । শিখতে থাকুন ।
শুরু করতে হবে Advance Level
এই লেভেল এ এসে আপনার কাজ হল the economist, reader’s digest এগুলো পরবেন । এখন আর সময় ধরে পড়তে হবে না । অবসর সময় গুলো তে reading practice করবেন । রাইটিং কিন্তু ছাড়বেন না । এখন আপনার কাজ হল GRE Big Book থেকে word based sentence completion সলভ করা । advance level শেষ ।
নয় মাস শেষ । আপনার কাজ ও শেষ । আরো কিন্তু তিন মাস আছে, এখানে একটি বইয়ের নাম বলছি, পারলে শেষ করুন, আপনার লাইফ চেঞ্জ হয়ে যাবে, বইটির নাম হচ্ছে GRE Verbal Grail by Aristotle । এই বইয়ের sentence completion গুলো খুব ভালো করে করলে GRE big book এর গুলো না দেখলেও চলবে। বইটা আমি নিজেও পড়েছি, কিন্তু সাজেস্ট করতাম না কেননা বইটা একটু কঠিন।
আপনি কিন্তু কেবল ৩ ঘণ্টাই পড়ছেন, তাও আবার সকালে।

আইবিএর পাজল নিয়ে খুব চিন্তায় রয়েছেন। কিন্তু মজার বিষয় হচ্ছে পাজল জিনিসটি একেবারেই সহজ এবং আপনি চাইলেই এই সেকশনে ৯০% মার্ক তুলতে পারেন কেননা এটি হুবুহু কমন এসে থাকে।
মূলত পাজল কমন আসে আগের জি আর ই বিগ বুক থেকে। কিন্তু সমস্যা হচ্ছে, এই বইটি বিশাল বড় আর এখানে কেবল উত্তর দেয়া আছে। তাই অনেকেই এই বইটি হাতে নিয়ে হতাশ হয়ে যায়। এখন আমরা এই সমস্যা থেকে কিভাবে রেহাই পাবেন, সেটি আলোচনা করব।
এই বইয়ে ২৭ টি টেস্টের প্রতিটিতে ২ টি করে পাজল এর সেকশন আছে। আর প্রতি সেকশনে আছ ১৯ টি করে প্রশ্ন। মাথা নস্ট হয়ে যাচ্ছে নিশ্চয়ই। আর এর প্রতিটি প্রশ্নের উত্তর দেয়া থাকলেও কোন ব্যাখ্যা দেয়া নেই। কিন্তু মজার বিষয় হচ্ছে যদি এতগুলো প্রশ্ন করে( যদি না করতে চান) আইবিএতে যে ধরনের পাজল আসে, সেগুলো করাটাই হচ্ছে ভালো কাজ। সাধারনত আইবিএতে একটু লম্বা এবং ট্রিকি পাজলগুলো এসে থাকে। তাই আমরা সাজেশন দিয়ে থাকি জি আর ই বিগ বুক এর প্রথম ১০-১২ টি টেস্ট এর সবগুলো পাজল সমাধান করে নিতে। আর এটাই যথেষ্ট। আর তাই আমরা Achilice Puzzle Book প্রথম ১৫ টি টেস্ট এর প্রতিটি পাজল এর ব্যাখ্যা দিয়েছি যেন আপনার পাজল সেকশন নিয়ে সকল চিন্তার অবসান ঘটে। আর বাজারের অন্য বইগুলোর মত দুই একটি প্রশ্ন সমাধান দিয়ে বাকিগুলো নিজে বুঝুন, এই টাইপ না, আমরা বইটিতে প্রতিটি প্রশ্নের যেখানে যে ধরনের ডায়াগ্রাম দরকার, সেইভাবেই ব্যাখ্যা দেয়া হয়েছে।
তবে একটি এখানে বলে নিচ্ছি, যদি খুব বেশি চিন্তা করতে না চান, কিন্তু ১০ থেকে ১২ মার্ক পেতে চান, Achilice Puzzle Book টি পড়ুন, আর লাগবে না।
এখন আবার ক্রিটিক্যাল রিজনিং দেয়া হয়েছে(২-৩) মার্কের। কিন্তু এই সেকশনে আইবিএ তেমন কঠিন প্রশ্ন করে থাকে না। তবে যদি আপনি খুব ভালো করে পড়তে চান, তবে আমাদের সাজেশন হচ্ছে অফিসিয়াল জিম্যাট এর ১৪ তম এডিশন। এই বইয়ে ২০০+ প্রশ্ন আছে, এগুলো থেকেই অনেক সময় কমন আসে বা দেখা যায় এই ধরনের প্রশ্ন পেয়ে যাবেন। তবে একটি কথা হচ্ছে, দিনে সর্বোচ্চ আধ ঘন্টার বেশি এই সেকশনে সময় দেবেন না। এভাবে যদি আপনি চার থেকে পাঁচ মাস সময় দেন, তবে কিন্তু আর তেমন কিছুই বাকি রইল না এই সেকশনে।
তাহলে আমরা বলতে পারি, ইংলিশ এর জন্য আমরা সময় দিচ্ছি তিন ঘন্টা প্রতিদিন এক বছরের জন্য। আর পাজল আর ক্রিটিক্যাল রিজনিং এর জন্য সময় দিচ্ছি মাত্র আধ ঘন্টা করে চার থেকে পাঁচ মাস। সময়ের হিসেবটা মাথায় রাখুন।
এইভাবে সাড়ে তিন ঘন্টা পড়ার পর আর বই নিয়ে বসার দরকার নেই। একেবারে আবার সন্ধ্যার পর দুইঘন্টা সময় রাখেবন ম্যাথের জন্য। কিন্তু কি পড়বেন ম্যাথ প্রস্তুতিতে? চলুন দেখে নেয়া যাক।
আগেই বলে নিচ্ছি, অনেকেই অনেক কিছু আপনাকে বলবে, তবে বেস্ট উপায়টা কেবল আপনি জানেন। যদি আপনি খুব বেশি দুর্বল হয়ে থাকেন, আমি বলতে চাই, প্রথম দুই থেকে তিন মাস সময় দিন ইংরেজিতে ম্যাথ করার অভ্যাস গড়ে তোলার উপর এবং ম্যাথের বেসিক গড়ে তোলার জন্য। এবার বাজারে প্রচলিত অনেক পাবলিকেশনের বইয়ের মধ্যে যেকোন একটি বই হাতে নিন। তবে খেয়াল রাখবেন, যেন ১৫০০ এর মত ম্যাথ থাকে। দিনে ত্রিশ টি করে দুই মাস সময় নিয়ে শেষ করবেন বইটি। এর পর আরো এক মাস সময় নিয়ে বইটি আবার শেষ করুন। এবার সময় নেবেন মাত্র পনের দিন। এভাবে নিজেকে গড়ে তুলুন। আপনার সময় চলে যাবে প্রায় ছয় মাস। এবার এক মাস সময় নিয়ে আইবিএর বিবিএর বিগত বছরের প্রশ্নগুলো শেষ করবেন।
আর এক মাস সময় নিয়ে এমবিএর প্রশ্নগুলো শেষ করবেন। আট মাস শেষ, তাইনা। এবার শুরু করবেন, ফাইনল যুদ্ধ। gmatclub.com এর question bank এর problem solving সেকশনে গিয়ে ৭০০ লেভেলের কিছু কঠিন ম্যাথ নিয়ে সময় দিন। দেখবেন, আপনি এবার রেডি হয়েছেন, আইবিএর জন্য। আর হ্যাঁ, জ্যামিতির জন্য NOVA gre math bible জ্যামিতি অংশ দেখে যাবেন। gmatclub.com সাইট টি কিভাবে ব্যবহার করতে হয়, তাঁর বিস্তারিত:
GMAT হচ্ছে বাইরে উচ্চ শিক্ষার জন্য একটি সোপান। ধরুন, আপনি ঢাবি থেকে মার্কেটিং এ বিবিএ করেছেন, আপনার স্কোর ৩.৫। আমি চবি থেকে করেছি। আমার স্কোর ও ৩.৫। এখন নিবে কাকে? আর আপনার সিজিপিএ যে আপনার কি কে উপস্থাপন করে তারা সেটা জানে খুব ভাল করে। তাই world এর কিছু বিখ্যাত business school একত্রিত হয়ে এই GMAT টেস্ট এর প্রবর্তন করেছিল। যাই হোক, এটার percentile, average score, history আমাদের আলোচনার বিসয়বস্তু না, আমরা জানব, GMAT প্রস্তুতির জন্য বিখ্যাত সাইট gmatclub.com কে কিভাবে কাজে লাগাবেন আপনার কাজে। দয়া করে কেউ বলবেন না যে ভাই আমি ট্যাব, মোবাইল দিয়ে চেষ্টা করেছি, কিন্তু পারছি না। ডেক্সটপ বা ল্যাপটপ দিয়ে ওয়েবসাইট এ ঢুকুন। হোমপেইজ আসবে। gmatclub.forum এই লেখার নিচে দেখুন HOME, FORUM, GMAT, ইত্যাদি লেখা কিছু লিঙ্ক আছে। GMAT এ ক্লিক করুন। অনেকগুলি অপশন পাবেন। আপনি GMAT Study Plans এ ক্লিক করুন। একটু অপেক্ষা করুন, নতুন পেজ আসবে। পেজ এর মধ্য ভাগে দেখবেন GMAT Study plan….. how to start.. লেখা আছে।
এর নিচে দেখবেন Question bank, downloads লিখা কিছু লিঙ্ক আছে। আপনার কাজ হল এবার question bank ক্লিক করা। দেখবেন, নতুন পেজ আসবে। যেখানে বেশ কিছু ভাগ করা আছে। gmat data sufficiency, gmat problem solving, gmat critical reasoning and gmat sentence correction চারটা পার্ট আপনার লাগবে। প্রতিটি ভাগেই দেখবেন যে বেশ কিছু ভাগ আছে। ৭০০ লেভেল, ৬০০-৭০০ লেভেল, সাব ৬০০ লেভেল, এছাড়া বিভিন্ন টপিক ধরে ধরে আলোচনা করা হয়েছে। আইবিএর প্রস্তুতি যারা অনলাইন বেজড করে নিতে যান, আমার সাজেশন হল আপনি critical reasoning এ ৬০০-৭০০ লেভেল ট্রাই করেন। sentence correction থেকে ৬০০-৭০০ লেভেল দেখুন। এছাড়া টপিক ধরে ধরে পরলেও দেখবেন প্রতিটি প্রশ্নের সাথে তার লেভেল দেয়া আছে। আর problem solving টাই হল ম্যাথ সেকশন। আপনি হয়ত জানেন না, আমাদের দেশের অনেক বই যে ম্যাথ দেখেন তা এই সাইট থেকেই থেকে নেয়া হচ্ছে। যদি ম্যাথ খুব ভাল করতে চান, কিছু , বেশি না ২০০ এর মত ৭০০ লেভেল এর ম্যাথ করুন। যদি বুঝে বুঝে করেন, আপনি আর পিছনে ফিরে তাকাবেন না।
reading সেকশন এ যান। passage গুলি দেখুন। এদের প্রেমে পড়ে যাবেন।
সবচেয়ে মজার বিষয় আপনি বুঝে যাবেন আমরা বাইরে থেকে কত পিছিয়ে আছি। বাইরের সবার সাথে নিজেকে তুলনা করার একটা প্ল্যাটফর্ম ও এটা। আর এই সাইটের মিডিয়াম লেভেলের ম্যাথ গুলি দিয়েই আমাদের দেশের বিভিন্ন প্রশ্নের কঠিন ম্যাথ বানানো হয়। যদি বিশ্বাস না হয়, কিছু ইংলিশ ম্যাথ লিকে সার্চ করুন। অনেক ম্যাথ দেখবেন এই সাইট থেকে মিল পাবেন।
এবার বলি ডাউনলোড অপশন নিয়ে। এটাতে ক্লিক করলে আপনি দেখবেন pdf, doc, ppt বিভিন্ন ফাইল এর বিশাল সমাহার। ক্লিক করলে বলবে যে আকাউন্ট খুলতে। নো প্রব্লেম। পাশেই দেখবেন বলা আছে আপনি চাইলে আপনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট দিয়ে লগ ইন করতে পারবেন। করে নিন। ভয় পাবেন না। পাসওয়ার্ড হ্যাক হবে না। আর কি চাই, এবার দেখুন তো পারেন কিনা। ও হ্যাঁ, এই সাইটের সাথে দেখবেন যে প্রচুর বিভিন্ন সাইটের লিঙ্ক পাবেন। চাইলে সেগুলিও ভিসিট করতে পারেন। লেগে থাকুন, আইবিএ তো আসবেই। জিম্যাট এ হয়ত ৭০০ পেয়েও যেতে পারেন। এই সাইটের সাথে GRE কিছু সাইট থেকে vocabulary based question সল্ভ করলেই আপনার অনলাইন ভিত্তিক প্রস্তুতি হয়ে যাবে। এর সাথে GRE big book থেকে পাজল সলভ করে নিলেই হবে।
তাঁর মানে আপনি এক বছর যদি নিয়ম মাফিক সাড়ে পাঁচ ঘন্টা সময় বিনিয়োগ করতে পারেন, আপনি খুব সহজেই কিন্তু আপনার ক্যারিয়ার নিয়ে যে চিন্তা, তা দূর করতে পারেন। আপনি কিন্তু বলতে পারেন ভাইয়া, রাইটিং নিয়ে কি করব, চিন্তা করবেন না। আমাদের প্রস্তুতি হচ্ছে এক বছরের জন্য, আপনি ১ বছর ম্যাথ এর জন্য ২ ঘন্টা, ইংরজির জন্য ৩ ঘন্টা আর পাজল ও ক্রিটিক্যাল রিজনিং এর জন্য আধ ঘণ্টা সময় নিচ্ছেন। কিন্তু পাজল বা রিজনিং এর জন্য সময় লাগছে ৪ থেকে ৫ মাস। তাহলে ৫ মাস পরে কিন্তু আপনি আরো ৭ মাস সময় পাচ্ছেন এই সময়টা কাজে লাগাবেন রাইটিং সেকশনে। সেখানে কি করতে হবে, তা নিয়ে আগে কিছুটা বলেছি। এখন আবার বলছি।

প্রায়ই শুনি যে ভাই লিখি তো, কিন্তু নাম্বার তো পাই না । কারন টা কি?
ধরুন, আপনি একটা এক্সাম দিতে গেলেন, প্রশ্নে আসল, information technology নিয়ে কিছু লিখতে, আর আপনি লিখলেন, Information technology is a great thing now a days. It has shaped our life in a new way. Now we depend on it and we can not think our life without it. So information technology is a great blessing to us. একটু দাড়ান ভাই, মনে হতে পারে, ভালই তো লিখলাম, grammar এর ভুল নাই, পাশ করে যাব । না রে ভাই, সমস্যা তা এই জায়গাতেই ।
পরীক্ষকদের কি কাজ নাই যে এই লেখার জন্য আপনাকে পাশ করিয়ে দেবে । প্রথমেই মনে রাখবেন, competitive exam আপনি কতটা ভাল লিখছেন সেটা কথা না, আসল কথা হল অন্ন দের চেয়ে কতটা ভাল লিখেছেন । অতএব, একবার নিজ জায়গা থেকে সরে গিয়ে ভাবুন, এই লেখাটা শতকরা কতজন লিখতে পারবে? উত্তর ৯৫% । হ্যা, বাকী ৫% হল তারা যারা কিনা ফাইনালি সিলেক্ট হয় । তাহলে তাদের লিখা কেমন হয় ভাই ।
at present, it is redundant to describe that how beneficial and effective information technology is because approximately 25 million people in our country have been using and receiving benefit from it. while information technology has brought about a tremendous change in business world, we …………….
এটা হল সেই লেখা যেখানে কিনা adjective clause, adverb clause, parallel structure ও অন্য ব্যপার গুলো ঠিকমত ব্যবহার হয়েছে ।
easily বলতে গেলে, আপনি ধরুন, কাউকে খুব ভালবাসেন, তার সাথে দেখা করতে বা তাকে impress করার জন্য আপনি কি করেন, একটু ভাল করে সাজা, well dressed হওয়া ইত্যাদি করেন । এই কাজ টাই করতে হবে আপনাকে এক্সাম হলে, স্যার দের পটাতে হবে । আর সাজগোজ টা হল different style of writing.
যেমন দেখুন,
conclusion লিখতে গিয়ে, in sum, we can say that……..না লিখে, in sum, if we want to reap greater benefit, we………লিখুন,
on the other hand বারবার না লিখে, contrast, while ব্যাবহার করুন ।
উদাহরন হিসেবে, for example না লিখে to describe the situation, one example can be stated লিখুন ।
linking words গুলো ভালকরে ব্যাবহার করুন । তাহলে সফলতা আসবেই ।
পত্রিকা পরতেই হবে । প্রতিদিন কমপক্ষে ২টা লিখা পরুন এবং summary করা শিখুন । সংখ্যাগত তথ্য দেয়া try করুন । commercial word কথার ভিতরে নিয়ে আসার try করুন । যদিও ফরমেট ভিত্তিক লেখা অনেকেই লিখেন কিন্তু এটা in the long run it will give you nothing. স্টাইল টা নিজেকেই বানাতে হবে । পোশাক পরার সময় যেমন আপনি সব কিছু এক রকম পরেন না, writing টা ঠিক তেমন । difference should be emerged in your writing style so that teachers can recognize you as a special one from others.
Best of luck

Achilice Barnad
(MBA 54th batch) IBA DU

ফেসবুক পেজঃ https://www.facebook.com/epitome55/

https://i1.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2018/03/iba-study-rule.jpg?fit=960%2C640https://i2.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2018/03/iba-study-rule.jpg?resize=150%2C150culiveইভেন্টক্যারিয়ারশিক্ষাAchilice Barnad,BBA & MBA(CU).,MBA-IBA(DU)আইবিএ এমবিএ এর প্রশ্নপত্রে বেশ কিছু পরিবর্তন এসেছে। এখন দেখা যাচ্ছে, ইংরেজিতে কিছুটা জি আর ই টাইপের প্রশ্ন আসে, তো চলুন, আজকে পরিবর্তন হওয়া এই প্রশ্নের সাথে কিভাবে তাল মেলাবেন, এই নিয়ে একটি complete পোষ্ট দেয়া হচ্ছে। অনেক বড় পোষ্ট তাই পোষ্ট টি শেয়ার করে টাইমলাইনে রাখুন যেন পরবর্তীতে দেখে...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University