এক শিয়ালের নেই লেজ, তাই সে চালাকি করে সবার লেজ কাটতে চায়। বর্তমান পশ্চিমাদের অবস্থাও হয়েছে সেরকম। সারা বছর মায়ের খবর নেই, মাকে পাঠিয়েছে বৃদ্ধাশ্রমে। বছরে এক ছুটির দিন ঠিক করে মায়ের কাছে কার্ড পাঠানোর জন্য। কার্ড পাঠানোর সেই দিনটিকে বানিয়ে দেয় `মা দিবস‘। মা- নামক পবিত্র সত্ত্বাকে কর্পোরেট বন্য বানিয়ে কার্ড আর গিফটের ব্যবসা করে। আর বোকা মুসলিমরা (যারা সারা বছর মায়ের কাছে থাকে, ইচ্ছা-আকাঙ্খা পূরণ করে) তারা ঐ লেজকাটা পশ্চিমাদের দেখে নিজেরাও লেজকাটে, একদিনের জন্য কথিত `মা দিবস‘ পালন করে মা নামক পবিত্র সত্ত্বাকে চরম অপমান করে।

কয়েকদিন আগে খবরে পড়লাম- পশ্চিমারা বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস পালন করছে, কারণ তাদের নাকি টয়লেট থেকে ফিরে হাত ধোয়ার অভ্যাস নেই। কিছুদিন পর দেখি বাংলাদেশেও হাত ধোয়া দিবস পালন শুরু হয়েছে, যদিও বাংলাদেশে মানুষ টয়লেট ফিরে কেন, আরো বহুবার দিনে হাত ধোয়।

পশ্চিমা লেজকাটারা কিছু করলেই সেটা করতে হবে এই অন্ধ অনুকরণ বাদ দিতে হবে, নয়ত কখনই নিজের অধিকতর উন্নত অস্তিত্ব অনুভব করা যাবে না।

অপরাহ্নের হাহাকার❤️

https://i1.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2017/07/mother-day.jpg?fit=725%2C400https://i0.wp.com/culive24.com/wp-content/uploads/2017/07/mother-day.jpg?resize=150%2C150culiveআন্তর্জাতিকফিচারma dibosএক শিয়ালের নেই লেজ, তাই সে চালাকি করে সবার লেজ কাটতে চায়। বর্তমান পশ্চিমাদের অবস্থাও হয়েছে সেরকম। সারা বছর মায়ের খবর নেই, মাকে পাঠিয়েছে বৃদ্ধাশ্রমে। বছরে এক ছুটির দিন ঠিক করে মায়ের কাছে কার্ড পাঠানোর জন্য। কার্ড পাঠানোর সেই দিনটিকে বানিয়ে দেয় `মা দিবস‘। মা- নামক পবিত্র সত্ত্বাকে কর্পোরেট...Think + and get inspired | Priority for Success and Positive Info of Chittagong University